গৌরীপুরে কল্লাকাটা ব্যাক্তি সন্দেহে যুবককে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশিত : রবিবার ২১ জুলাই, ২০১৯ /

ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার ২নং গৌরীপুর ইউনিয়নের হিম্মতনগর বাজার এলাকায় কল্লাকাটা ব্যাক্তি সন্দেহে এক যুবক স্থানীয় জনতার হাতে গণধোলাইয়ের শিকার হন।

শনিবার ২০ জুলাই রাত ৮ টার দিকে এই ঘটনা ঘটে।

গণধোলাইয়ের শিকার ও আটককৃত যুবকের নাম মোঃ নাসির উদ্দিন(২৫) উপজেলার অচিন্তপুর ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামের আঃ রাশিদের ছেলে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রাতে ওই ব্যক্তিকে গৌরীপুর ইউনিয়নের হিম্মতনগর বাজারে এলাকায় দেখতে পায় স্থানীয়রা। অপরিচিত হওয়ায় তাদের দেখে স্থানীয় লোকজনের সন্দেহ হয়। এক পর্যায়ে উপস্থিত লোকজন ওই ব্যক্তিকে ধরে গণধোলাই দেয়।

আটককৃত নাসির উদ্দিন বলেন,পাশের গ্রামের বন্ধু জুয়েল সাথে সাক্ষাত করতে সন্ধায় ৭.৩০মিনিটে হিম্মতনগর বাজারে যাই। এ সময় গলাকাটা ধরতে জনতা দৌড়তে থাকলে আমিও দৌড়াতে থাকি। হঠাৎ আমি অন্ধকারে এক বাড়ীর সামনে পড়ে যাই। এ সময় আমাকে একজন জড়িয়ে ধরে বলে কল্লাকাটা লোক পাইছি আমি বারবার বলি আমার বাড়ী পাশের গ্রাম কৃষ্ণপুর, আমি কল্লা কাটা নই। কিন্তু কোন কথা না শুনেই স্থানীয় জনতা আমাকে ধরে গনপিটুনি দিয়ে পুলিশের হাতে তুলে দেয়।আমি নির্দোষ।
রাতে এলাকাবাসী, জন প্রতিনিধি ও তার পরিবারের লোকজন থানায় এসে জানান, ছেলেটি বর্তমানে নরসিংদী একটি মুরগির খামারে কাজ করে ছুটিতে বাড়ীতে আসে দীর্ঘদিন বাড়ীতে না থাকায় এলাকায় অপরিচিত তবে ছেলেটি ভাল বলে সনাক্ত করে সকলেই।

গৌরীপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক(তদন্ত) গোলাম মাওলা সাংবাদিকদের জানান, এব্যাপারে আমরা বিষয়টি তদন্ত করে পরবর্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহন করবো।

আপনার মতামত লিখুন :