গৌরীপুরে শিক্ষকের ফসলি জমি দখলের চেষ্টা

গৌরীপুর নিউজ
প্রকাশিত : বুধবার ১৬ জানুয়ারী, ২০১৯ /

গৌরীপুর (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি :
ময়মনসিংহের গৌরীপুরে পূর্ব শালিহর গ্রামে অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক সুধাংশু ভূষন দাস (৭০) ও তার ভাই হিমাংশু ভূষণ দাসের ফসলি জমি দখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে একই গ্রামের স্থানীয় হেলিম খান ওরফে সেনু গংদের বিরুদ্ধে। দীর্ঘ বছর ধরে সুধাংশু ভূষনদের ভোগ দখলে থাকা জমিতে চাষাবাদে বাঁধা দিয়ে মঙ্গলবার (১৫ জানুয়ারী) ৫০ শতক জমিতে খুঁটি মেরে দিয়েছে সেনু গংরা। বর্তমানে দখলকৃত জমি উদ্ধারে তিনি মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন।
বুধবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, উল্লেখিত গ্রামে সুধাংশু ভূষণ দাস ও তার ভাই হিমাংশু ভূষণ দাসের ফসলি জমিতে বাঁশের খুঁটি মেরে ৫০ শতক জমির সীমানা নির্ধারণ করে রাখা হয়েছে। এসময় উপস্থিত স্থানীয় লোকজনের কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তারা জানান, উক্ত জমি দীর্ঘ বছর ধরে সুধাংশু ভূষণ ও তার ভাই হিমাংশু ভূষণ ভোগ দখলে রেখে চাষাবাদ করে আসছিলেন। মঙ্গলবার সকালে স্বর্গীয় যুগেন্দ্র চন্দ্র দাসের ধর্মান্তরিত ছেলে হেলিম খান ওরফে সেনু, পরিমল চন্দ্র দাস, রনজিৎ চন্দ্র দাস এ জমিতে খুঁটি মেরেছেন।
স্বর্গীয় নরেন্দ্র দাসের ছেলে হিমাংশু ভূষণ দাস (৫৫) জানান, উক্ত জমি তিনি এবং তার ভাই সুধাংশু ভূষণ দাস ১৯৮৮ সনে উল্লেখিত হেলিম খান ওরফে সেনুর ভাই স্বর্গীয় অজিত দাস ওরফে ভানুর কাছ থেকে সাফ কাওলা দলিলমূলে ক্রয় করে ভোগদখল করে আসছেন। অজিত দাসের মৃত্যুর পর সম্প্রতি তার ভাই সেনু গং এ জমি তাদের দাবি করে দখলের চেষ্টা করে আসছিলেন। মঙ্গলবার তারা জোরপূর্বক খুঁটি মেরে ৫০ শতক জমি দখল করে।
এ বিষয়ে মন্তব্য জানতে হেলিম খান ওরফে সেনুর বাড়িতে গিয়ে সেনু ও তার ভাইদের পাওয়া যায়নি।

আপনার মতামত লিখুন :