নান্দাইলে পা বাঁধা এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার!

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশিত : শনিবার ১৯ জুন, ২০২১ /

ময়মনসিংহের নান্দাইলে হাত পা বাধা ও মুখে বালিশ চাপা দেয়া অবস্থায় জাহেদ মিয়া তালুকদার (২৮) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত জাহেদ তালুকদার হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার গানপুর গ্রামের মাহতাব উদ্দিনের ছেলে। তিনি কাঠের তৈরি নানা তৈজসপত্রের ব্যবসা করতেন।

শুক্রবার (১৮ জুন) বিকাল ৪ টায় উপজেলার গাংগাইল ইউনিয়নের অরণ্যপাশা গ্রামের ভাড়া বাসা থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, ব্যবসায়ী জাহেদ মিয়া তালুকদার গত ২৬ মে বাসা ভাড়া নিয়ে কাঠের তৈরী তৈজসপত্রের ব্যবসা করতেন। তার অধিনে ৮ জন হকার তার তৈরী তৈজসপত্র বিক্রি করতেন।

দুপুর বেলায় জাহেদের কক্ষের বারান্দায় বাতি জ্বলতে দেখে বাসার মালিক হকারদের ডেকে বাতি নেভাতে বলেন। বারান্দার গ্রিলে তালা মারা থাকায় একজন হকার একটি কাঠি দিয়ে খোঁচা মেরে বাতির সুইচ বন্ধ করে দেন।

কিন্তু, দুপুর পার হয়ে বিকাল হলেও জাহেদ ঘরের দরজা না খুলায় তাকে ডাকাডাকি করেন। ডাক দিলেও কোন সাড়া না দেয়ায় দরজা খুলে তার হাত-পা বাঁধা লাশ মুখে বালিশ চাপা দেওয়া অবস্থায় মেঝেতে পড়ে আছে। পরে স্থানীয়রা থানায় খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

এ বিষয়ে নান্দাইল মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ মিজানুর রহমান আকন্দ বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্ত করার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের স্বজনদের খবর দেয়া হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :