ময়মনসিংহে কোতোয়ালি পুলিশের প্রচেষ্টায় স্বজনদের ফিরে পেয়েছে শিশু আলীম

আরিফ রববানী
প্রকাশিত : মঙ্গলবার ২৪ আগস্ট, ২০২১ /

ময়মনসিংহ জেলা শহরের দিঘারকান্দা এলাকায় রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে কাঁদছিল প্রায় ৮বছর বয়সী একটি ছেলে শিশু। তার বাড়ী শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতি উপজেলায়। সে ঝিনাইগাতি থানার মোড় এলাকার বাসিন্দা কামাল মিয়ার পুত্র। নাম আলীম। আলীমের মায়ের নাম সুলতানা খাতুন। বিষয়টি দিঘারকান্দা এলাকার মঠর শ্রমিক আবুল কালাম কোতোয়ালী মডেল থানায় অবগত করলে থানা সাব ইন্সপেক্টর শুভ্র শাহা তাকে থানায় নিয়ে আসেন। আলীম ঠিকানা বলতে পারেনি। শিশুটিকে জিজ্ঞাসা করে পুলিশের ওই সদস্য জানতে পারেন, ছেলেটি ঝিনাইগাতি থেকে—চলে এসেছে। তার সঙ্গে আর কেউ নেই। এ পরিস্থিতিতে পুলিশের ওই সদস্য বিষয়টি কোতোয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহ কামাল আকন্দকে অবহিত করেন। ওসি শাহ কামাল আকন্দ ছেলেটিকে থানায় নিয়ে আসার নির্দেশ দেন। পরে কোতুয়ালী থানার মেধাবী ও চৌকস ওসি তার বুদ্ধি কে কাজে লাগিয়ে তার পরামর্শে মঙ্গলবার (২৪শে আগষ্ট) ফেইসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে শিশুটির অভিভাবকের খোঁজ করেন কোতুয়ালী মডেল থানা পুলিশ । মুহুর্তেই স্ট্যাটাসটি বিভিন্ন পেশাশ্রেণীর ব্যক্তিবর্গের শেয়ারে ভাইরাল হয়ে উঠে।

মানবিক এই পুলিশ কর্মকর্তার মানবিক কর্মের ফলে মাত্র ৫ঘন্টার মাঝেই হারানো শিশুর সংবাদ জানতে পারেন তার পিতা কামাল ও মাতা সুলতানাসহ নিকটাত্মীয়রা। মঙ্গলবার বিকালের মধ্যেই কোতোয়ালী মডেল থানায় যোগাযোগ করে ছেলেকে বুঝে নেন পিতা কামাল ও মাতা সুলতানা। হারানো ছেলেকে তার পিতা-মাতার কাছে বুঝিয়ে দেওয়া ছাড়াও শিশুটিকে নিজের হেফাজতে রেখে তার খাওয়া-দাওয়াসহ সার্বিক দেখাশোনাও করেছেন ওসি শাহ কামাল আকন্দ। কোতোয়ালী মডেল থানায় গিয়ে সন্তানকে কোলে তুলে নিলে সৃষ্টি হয় এক আবেগঘন পরিবেশের। কান্না থামিয়ে মায়ের কোলে ওঠে আলীম হাসে স্বস্তির হাসি। ময়মনসিংহ কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি শাহ কামাল আকন্দ এর মহানুভবতা আর প্রচেষ্টায় এভাবে বাবা-মা আর স্বজনদের ফিরে পেয়েছে ছোট্ট শিশুটি।

শিশুটির মা সুলতানা জানান, তাদের দুই সন্তানের মধ্যে আলীম ছোট। হঠাৎ আলীম কোথায় যেন হারিয়ে যায়। ছেলের সন্ধানে তারা বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুজি করেন। মঙ্গলবার পুলিশের মাধ্যমে তারা জানতে পারেন, তার শিশু সন্তান আলীম ময়মনসিংহের কোতুয়ালী মডেল থানায় রয়েছে। বিকালে থানায় এসে তিনি ছেলেকে ফিরে পেয়ে এখন আনন্দে আত্মহারা।

ময়মনসিংহের কোতোয়ালী মডেল থানার ওসি শাহ কামাল আকন্দ জানান, ছেলেটি ময়মনসিংহ শহরের দিঘারকান্দা এলাকা পর্যন্ত আসে। অচেনা জায়গায় এসে বিপদে পড়ে একপর্যায়ে শিশুটি কান্না শুরু করে। বিষয়টি তিনি জানতে পেরে শিশুটিকে উদ্ধার করে নিজ হেফাজতে এনে রেখে পরিবারের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেন, অবশেষে না পেরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে সন্ধান চাওয়া হয় এবং এক পর্যায়ে পরিবারের কাছে খবর পৌঁছাতে সক্ষম হন। মঙ্গলবার বিকালে আনুষ্ঠানিকভাবে শিশুটিকে তার মা-বাবার জিম্মায় তিনি প্রদান করেছেন। ওসি মো. শাহ কামাল আকন্দ বলেন, ছেলেটিকে তার পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিতে পেরে ভীষণ ভালো লাগছে। মনে হচ্ছে, একটি ভালো কাজ করতে পেরেছি।

আপনার মতামত লিখুন :