ঢাকাশনিবার , ২১ আগস্ট ২০২১

বেগমগঞ্জে ছাত্রীকে তুলে নিয়ে নির্মাণাধীন বাড়িতে গণধর্ষণ, আটক-২

নিজস্ব প্রতিবেদক
আগস্ট ২১, ২০২১ ৪:২৩ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে দশম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে (১৬) রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে দলবেধে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় তার সঙ্গে থাকা স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নেওয়ারও অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার সকাল ১১টার দিকে নির্যাতনের শিকার ওই শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে দুইজনের নামে বেগমগঞ্জ মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
শুক্রবার বিকেল ৩টার দিকে বেগমগঞ্জ উপজেলার শরীফপুর ইউনিয়নের একটি গ্রামে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত দুই যুবককে গ্রেপ্তার করেছে। তার হলেন- উপজেলার শরীফপুর ইউনিয়নের বাবুনগর গ্রামের আব্দুল আউয়ালের ছেলে আব্দুর রহমান (২৮) ও একই গ্রামের দুলালের ছেলে মো. ইব্রাহিম (২৪)।
থানায় দায়ের করা অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, ওই স্কুলছাত্রী স্থানীয় একটি উচ্চ বিদ্যালয়ে দশম শ্রেণিতে পড়ে। শুক্রবার বেলা ৩টার দিকে নিজ বাড়ি থেকে পাশেই বান্ধবীর বাড়িতে যাচ্ছিল সে। পথে আব্দুর রহমান (২৮) তাকে রাস্তা থেকে মুখ চেপে ধরে তুলে নিয়ে যায়। এরপর তাকে নির্মাণাধীন একটি ফাঁকা বাড়িতে নিয়ে ওড়না দিয়ে হাত বেঁধে ধর্ষণ করে। পরে আব্দুর রহমান একই গ্রামের তার বন্ধু ইব্রাহিমকে (২২) ফোন করে এবং নির্যাতিত কিশোরীকে আব্দুর রহমানের বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে আব্দুর রহমান তাকে আবারও ধর্ষণ করেন এবং ইব্রাহিম ধর্ষণের ভিডিও মোবাইলে ধারণ করেন। এরপর ইব্রাহিম ধর্ষণ করেন এবং আব্দুর রহমান ধর্ষণের ভিডিও মোবাইলে ধারণ করেন। এভাবে দুজনে মিলে দুপুর ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত পালাক্রমে ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করেন। একপর্যায়ে সন্ধ্যার পর আব্দুর রহমান নির্যাতিতা কিশোরীর কানে থাকা স্বর্ণের দুল ও নাকফুল ছিনিয়ে নিয়ে তাকে ঘর থেকে বের করে দেন। ওই স্কুলছাত্রী বাড়িতে গিয়ে বিষয়টি তার মাকে জানায়।
বেগমগঞ্জ মডেল থানার ওসি মো. কারুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে শুক্রবার রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে দুই যুবককে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। এরপর শনিবার মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়েরের পর দুপুরে তাদের গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তার দুইজন ধর্ষণ ও অলংকার ছিনতাইয়ের কথা স্বীকার করেছে।
নোয়াখালীর পুলিশ সুপার (এসপি) মো.শহীদুল ইসলাম বলেন, অভিযোগ পেয়ে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে অভিযুক্ত আব্দুর রহমান ও ইব্রাহিমকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ওই স্কুলছাত্রীকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রিয় পাঠক আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর,খবরের পিছনের খবর সরাসরি জানাতে যোগাযোগ করুন। আপনার তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

মোবাইলঃ +8801791-601061, +8801717-785548, +8801518-463033

ইমেইলঃ news.gouripurnews@gmail.com