ময়মনসিংহমঙ্গলবার , ১৫ আগস্ট ২০২৩
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ময়মনসিংহে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার পর নিজেকে শেষ করলেন স্বামী

অনলাইন ডেস্ক
আগস্ট ১৫, ২০২৩ ১০:৩৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

পারিবারিক কলহের জেরে ময়মনসিংহ সদরের চুরখাই কান্দাপাড়া এলাকায় অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার পর আত্মহত্যা করেছেন স্বামী।

মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) দুপুরে নিহত দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

নিহতরা হলেন- ওই গ্রামের আহাম্মদ আলীর ছেলে জুলহাস মিয়া (২৬) ও তার স্ত্রী অঞ্জনা বেগম (২৬)।

পুলিশ জানায়, সদরের চুরখাই কান্দাপাড়া গ্রামের আহাম্মদ আলীর ছেলে জুলহাস মিয়া স্থানীয় একটি ফিড কোম্পানিতে শ্রমিকের কাজ করেন। প্রায় ৯ মাস আগে জুলহাস দ্বিতীয় বিয়ে করেন গৌরীপুরের ভাংনামারী ইউনিয়নের খোদাবক্সপুর গ্রামের সুরুজ আলীর মেয়ে অঞ্জনা বেগমকে। অঞ্জনারও দ্বিতীয় বিয়ে এটি। অঞ্জনা চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন। জুলহাস প্রথম স্ত্রীর সঙ্গে অন্তত দুই বছর আগে বিচ্ছেদ ঘটান। সে স্ত্রীর ঘরে মরিয়ম আক্তার নামে দুই বছর বয়সী কন্যা সন্তান রয়েছে তার। মরিয়ম তার দাদি জুলেখা বেগমের কাছে থাকতো। প্রথম স্ত্রীর বাচ্চা ও পারিবারিক নানা বিষয় নিয়ে কলহ লেগে থাকতো তাদের সংসারে।

গত সোমবার রাতে স্বামী-স্ত্রী রাতের খাবার খেয়ে নিজেদের ঘরে ঘুমিয়ে পড়েন। মঙ্গলবার সকাল ১০টা বেজে গেলেও দরজা না খোলায় টিনের চাল কেটে ভেতরে ঢুকে দুইজনের মরদেহ দেখতে পান স্বজনরা। পরে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। পুলিশ গিয়ে বিছানায় ওপর হয়ে শোয়ানো অবস্থায় অঞ্জনার মরদেহ ও ঝুলন্ত অবস্থায় জুলহাসের মরদেহ পায়।

ময়মনসিংহ কোতোয়ালি মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শাহ কামাল আকন্দ  বলেন, স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহ থেকে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার পর স্বামী আত্মহত্যা করেছেন। এ ঘটনায় প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

 

জিএন/এইচ

    ইমেইলঃ news.gouripurnews@gmail.com